অ্যাপলের গাড়ি

অ্যাপলের কিছু কর্মকর্তাদের সূত্র থেকে জানা যায়, বিদ্যুৎ চালিত গাড়ির ব্যাটারির নকশায় অ্যাপল অনেক বড় পরিবর্তন নিয়ে আসবে। লিথিয়াম আইয়ন ব্যাটারির পরিবর্তে তারা লিথিয়াম আয়ন ফসফেট ব্যবহার করবে। এতে ব্যাটারির দাম কমবে অন্যদিকে বাড়বে গাড়ির রেঞ্চ। প্রজেক্ট টাইটান প্রকল্পের আওতায় এই ইলেকট্রিক গাড়ি বাজারজাত করবে অ্যাপল।

অ্যাপলের টিম কুক ২০১৭ সালে এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছিলেন, “বিদ্যুৎ চালিত গাড়ি নিয়ে তারা কাজ করছেন না। তবে গত বছর ড্রাইভ ডট এআই নামের একটি স্টার্টআপ কিনে নেয়ার পর আবার আলোচনা শুরু হয় যে অ্যাপল গাড়ি বানাচ্ছে। ২০১৮ সালে টেসলা থেকে অ্যাপলে যোগ দেন ডুগ ফিলড। ইলেকট্রিক অটোমেকার টেসলায় তিনি কাজ করতেন সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে। তার অধীনে অ্যাপলে ১৯০ জন কাজ করছেন। টেসলার মডেল–৩ গাড়িটি তার হাত ধরেই নির্মাণ করা হয়েছিলো।“

প্রজেক্ট টাইটানের প্রধান এখন অ্যাপল এক্সিকিউটিভ জন জিয়ানন্দ্রা। তার অধীনে থাকা আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স ও মেশিন লার্নিং গ্রুপের সঙ্গেই এখন কাজ চলবে প্রজেক্ট টাইটানের।অ্যাপলের পক্ষ থেকে এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করা হয়নি। প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানটি বলছে, ভবিষ্যতের যেকোনো পণ্যের ব্যাপারে অ্যাপলের পক্ষ থেকে কোনো মন্তব্য করা হয়নি।

এদিকে প্রজেক্ট টাইটানে কাজ করা একজন জানিয়েছেন, বিশ্বে সম্ভবত অ্যাপলই কোনো কোম্পানি বা সংস্থা, যাদের এমন কাজ করার সব যোগ্যতা রয়েছে। কিন্তু একই সময়ে এটিও মাথায় রাখতে হবে যে এটি কোনো ফোন নয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *