আবাসিক হোটেলে লাশ

নওগাঁ সদরের মুক্তির মোড় এলাকায় ইডেন নামের ওই চায়নিজ রেস্টুরেন্ট অ্যান্ড আবাসিক হোটেলে বিয়ের অনুষ্ঠান হওয়ার কথা ছিল আজ। রান্নার জিনিসপত্র বুঝে নিতে যখন হোটেলবয়ের কক্ষে কড়া নাড়েন, তার কিছুক্ষণ পর ওই কক্ষে মেলে একটি লাশ। কক্ষটি বাইরে থেকে তালা দেওয়া ছিল। উদ্ধার হওয়া লাশ হোটেলবয় আতাউর রহমানের (৪৫)।

এ ঘটনায় ওই কক্ষে থাকা অপর হোটেলবয়কে সন্দেহ পুলিশ ও হোটেলমালিকের। ঘটনার পর থেকে ওই কর্মচারী পলাতক। হোটেলমালিক জানিয়েছেন, পলাতক কর্মচারীর নাম বাদল। নিহত আতাউরের বাড়ি জয়পুরহাটের আক্কেলপুর উপজেলার চক মহিদুল গ্রামে। তিনি ১৫ বছর ধরে হোটেলেবয় হিসেবে কাজ করতেন। হত্যার কারণ জানতে পারেনি পুলিশ।

যে কক্ষ থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়, সেখানে একটি চেয়ার ভাঙা অবস্থায় পাওয়া গেছে। লাশের শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন আছে।নওগাঁ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নজরুল ইসলাম বলেন, এই হত্যার কারণ সম্পর্কে এখনই সুস্পষ্টভাবে কিছু বলা যাচ্ছে না। প্রাথমিকভাবে পলাতক হোটেলবয় বাদলকে সন্দেহ করা হচ্ছে।

 

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *