নবীগঞ্জ পৌরসভার নির্বাচন

এ নির্বাচনের আগমুহূর্তে আজ বুধবার দুপুরে নবীগঞ্জে সমাবেশ করেছেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ুমন্ত্রী শাহাব উদ্দিন। সমাবেশে তিনি বলেন, “এ এলাকার উন্নয়নে আমি সব সময়ই মানুষের পাশে আছি। আগামী দিনেও থাকব।“ তিনি নবীগঞ্জে ইকোপার্ক ও স্ট্রিট লাইট স্থাপন, নদ খননসহ নানা উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি দেন এলাকাবাসীকে।

এলাকাবাসী ও দলীয় সূত্রে জানা গেছে, আজ দুপুরে নবীগঞ্জ উপজেলার কুর্শি বালিকা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে স্কুলের নতুন ভবন নির্মাণকাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন ও এক সমাবেশ আয়োজন করে স্থানীয় স্কুল কমিটি। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন মন্ত্রী শাহাব উদ্দিন। মন্ত্রী বলেন, বর্তমান সরকার গ্রামাঞ্চলে বয়স্ক, বিধবা, প্রতিবন্ধী, মাতৃকালীন ভাতাসহ নানা সুযোগ–সুবিধার বৃদ্ধি করেছে।

গৃহ ও ভূমিহীনদের খাসভূমিতে বাড়িঘর নির্মাণ করে দিচ্ছে। এ ছাড়া মুক্তিযোদ্ধাদের নিয়মিত ভাতা প্রদান এবং ঘরবাড়ি নির্মাণ করে দিচ্ছে। অতীতে অন্য সরকার যা করেনি, এ সরকার তা–ই করেছে। তিনি আরও বলেন, ‘আমি আপনাদের পাশে আছি, আগামী দিনেও থাকব। নবীগঞ্জে আলো ছড়িয়ে দিতে অচিরেই স্ট্রিট লাইট স্থাপন করা হবে। এ এলাকায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের উন্নয়নসহ ইকোপার্ক গড়ে তোলা হবে।’ পাশাপাশি ডেবনা নদীর খননকাজসহ নানা উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি দেন মন্ত্রী।

মন্ত্রীর এ বক্তব্য নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন নবীগঞ্জ পৌরসভার বিএনপির প্রার্থী বিএনপির মেয়র প্রার্থী ছাবির আহমেদ চৌধুরী। তিনি বলেন, ১৬ জানুয়ারি এ পৌরসভার নির্বাচন। এ নির্বাচনের আগমুহূর্তে নির্বাচনী এলাকার লাগোয়া কুর্শি গ্রামে মন্ত্রী শাহাব উদ্দিন সমাবেশ করেছেন। সমাবেশে মূলত তাঁর মেয়ের জামাই মেয়র প্রার্থী গোলাম রসূল চৌধুরীকে জেতানোর জন্য। সমাবেশে তিনি ইঙ্গিত করেছেন, তাঁর জামাতা পাস করলে তিনি এলাকার উন্নয়নে জনগণের পাশে থাকবেন। নির্বাচনের আগমুহূর্তে নানা প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন, যা নির্বাচনী বিধির লঙ্ঘন।

হবিগঞ্জ-১ আসনের সাবেক সাংসদ জাতীয় পার্টির নেতা আবদুল মুনিম চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও কুর্শি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কামাল হাসান চৌধুরীর সঞ্চালনায় সমাবেশে বিশেষ অতিথি ছিলেন হবিগঞ্জ-১ (নবীগঞ্জ-বাহুবল) আসনের সাংসদ গাজী মোহাম্মদ শাহনওয়াজ মিলাদ। বক্তব্য দেন নবীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফজলুল হক চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান গতি গোবিন্দ দাশ, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইফুল জাহান চৌধুরী, নবীগঞ্জ উপজেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক শাহ আবুল খয়ের, ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান এমদাদুল হক চৌধুরী প্রমুখ।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published.