নতুন আপডেট আসছে উইন্ডোজে

আবারও আপডেট হচ্ছে উইন্ডোস। তবে নতুন আপডেটের এই এক্সটেনশনের সূত্র ধরে নানা সমস্যাও রয়েছে। ইতিমধ্যেই  মাইক্রোসফট- এর তরফে এ নিয়ে বিবৃতি দেওয়া হয়েছে।

এ ক্ষেত্রে উইন্ডোজ  ১০  আপডেটের জেরে আপনার কম্পিউটারের ফাইল সিস্টেমে নানা প্রভাব পড়তে পারে। বুটিংয়ের ক্ষেত্রেও নানা সমস্যা দেখা দিতে পারে। এবার এই সমস্যা ও আপডেট সংক্রান্ত বিষয়ে বিস্তারিত জেনে নেয়া যাক।যদি বুটিংয়ের ক্ষেত্রে কোনো সমস্যা দেখা দেয়, তা হলে রিকভারি কনসোলের ক্ষেত্রেও সমস্যা দেখা দিতে পারে।

এ ক্ষেত্রে প্রথমে কম্পিউটারের অ্যাডভান্স অপশনে যেতে হবে। তারপর Command Prompt সিলেক্ট করতে হবে। এবার এই কমান্ড প্রম্পট উইন্ডোতে chkdsk /f টাইপ করতে হবে। এর কারণে উইন্ডোজ  ১০  PC-এর স্টোরেজে স্ক্যান শুরু হবে। একবার স্ক্যান সম্পূর্ণ হয়ে গেলে কমান্ড প্রম্পটে একজিট টাইপ করতে হবে।

এবার উইন্ডোজ  ১০  রিস্টার্ট নেবে। যদি রিস্টার্ট না হয়, তা হলে বেশ কয়েকটি অপশন দেখাবে। এক্ষেত্রে Exit and continue to Windows 10 অপশন সিলেক্ট করতে হবে। তা হলেই সমস্যার সমাধান পাওয়া যাবে।

এ ক্ষেত্রে সাময়িক একটি সমাধানও রয়েছে। যদি আপনার ভাগ্য ভালো হয় এবং এখন পর্যন্ত আপনি আপনার উইন্ডোজ  ১০ -এ এইরকম কোনো ইস্যুর সম্মুখীন না হন, তাহলে কিছুদিনের জন্য OS আপডেটকে পজ করে রাখতে পারেন। এ ক্ষেত্রে স্টার্ট মেনু খোলার জন্য কম্পিউটার স্ক্রিনের বাম দিকের নিচে উইন্ডোজ  ১০ আইকনে ক্লিক করতে হবে।

এরপর সেটিংস মেনু সিলেক্ট করতে হবে। এর ফলে একটি নতুন উইন্ডো খুলে যাবে। এখানে নিচের দিকে স্ক্রোল করে উইন্ডোজ আপডেট অপশনে যেতে হবে বা সার্চ করে নিতে হবে। এরপর আপডেট পেইজ খুলে যাবে।

এখানে পেন্ডিং আপডেটগুলির তালিকা রয়েছে। দেখা যাবে ডাউনলোড বা ইনস্টলের স্টেটাসও। এই পেজের নিচের দিকেই Pause Updates for 7 days অপশন রয়েছে। এবার এই অপশনটি সিলেক্ট করে অটোমেটিক ডাউনলোড বা ইনস্টলের বিষয়টি কয়েকদিনের জন্য বন্ধ রাখতে পারেন। পরে আবার এই সময়সীমা বাড়ানো যেতে পারে।

যদি আপনি আপাতত Windows 10-এর আপডেট না চান, তা হলে একইভাবে একটু স্ক্রোল করে নিচে উইন্ডোজ আপডেট পেইজে আসতে হবে। এখানে আরও একটি সমাধান রয়েছে। উইন্ডোজ আপডেট পেইজে এসে অ্যাডভান্স অপশন সিলেক্ট করতে হবে।

অ্যাডভান্স অপশন সিলেক্ট করার পর বেশ কয়েকটি অপশন হাজির হবে আপনার কম্পিউটার স্ক্রিনে। আর এখানে উইন্ডোজ আপডেট বা অটোমেটিক ইনস্টলেশনের জন্য আপনি আগামী ৩৫ দিন পর্যন্ত যে কোনো একটি তারিখ নির্বাচন করতে পারেন। অর্থাৎ আপডেটটির ডাউনলোড বা ইনস্টল বন্ধ রাখার ক্ষেত্রে ৩৫ দিন পর্যন্ত সময় পেয়ে যেতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *