হাইকোর্ট খালেদার জামিন আবেদন আবারও প্রত্যাখ্যান করেছেন

হাইকোর্ট খালেদার জামিন আবেদন আবারও প্রত্যাখ্যান করেছেন

আদেশে আদালত বলেছে, বিএনপি প্রধানকে কারা কোড অনুযায়ী চিকিৎসা দেওয়া হবে।

স্বাস্থ্য বিষয়ক কারণ উল্লেখ করে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার আইনজীবিদের করা জামিন আবেদন নাকচ করেছে হাইকোর্ট।

বৃহস্পতিবার বিকেলে বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি একেএম জহিরুল হকের বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

আদেশে আদালত বলেছে, বিএনপি প্রধানকে কারা কোড অনুযায়ী চিকিৎসা দেওয়া হবে।

এর আগে বুধবার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) উপাচার্য (ভিসি) খালেদার সর্বশেষ স্বাস্থ্যের অবস্থার বিষয়ে আদালতে মেডিকেল রিপোর্ট পাঠিয়েছেন।

১৮ ফেব্রুয়ারি অসুস্থতার কথা উল্লেখ করে বিএনপি প্রধান এই মামলায় জামিন চেয়ে হাইকোর্টে একটি নতুন আবেদন করেন।

আবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে, বিএনপি চেয়ারপারসন গুরুতর অসুস্থ এবং উন্নত চিকিৎসার প্রয়োজন।

১২ ডিসেম্বর, ২০ ১৯ , সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ দুর্নীতি মামলায় খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন নাকচ করে দেয়।
ঢাকার একটি বিশেষ আদালত জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় ২৯ শে অক্টোবর, ২০১৮ এ বিএনপি প্রধানসহ তিন জনকে সাত বছরের জন্য জেল করেছে।

খালেদা জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় ৮ ই ফেব্রুয়ারী, ২০১৮ সালে দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পর থেকে তিনি কারাগারে রয়েছেন।

২০১৪ সালের ১ এপ্রিল থেকে বিএনপি প্রধান বিএসএমএমইউতে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

Are you happy ? Please spread the news